1. admin@bdculture24.com : adminsr :
  2. emdad365d@gmail.com : ইমদাদুল ইসলাম : ইমদাদুল ইসলাম
"ধোঁকা" লেখকঃ মুঃ রাসেল উদ্দিন পিয়াস। - BD
মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৫:৩৯ অপরাহ্ন

“ধোঁকা” লেখকঃ মুঃ রাসেল উদ্দিন পিয়াস।

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেটের সময় : বৃহস্পতিবার, ৫ মে, ২০২২
  • ১১৫ টাইম ভিউ

বিয়ে হল আজ সাতটি বছর,

বাচ্ছা আসেনি কোলে।

দিন কাটে তাই পিয়াস মিয়ার,

নিদ্রা আহার ভুলে।

শ্বাশুড়ী বলল- যাওনা বাবা,

পাগলা পীরের কাছে,

খুলে বল তারে মনের কথা,

ইচ্ছে যত আছে।

পরের দিন’ই পিয়াস মিয়া,

ছুটল পীরের বাড়ি।

সাথে নিয়েছে ফলফলাদি,

মিষ্টি রসের হাড়ি।

পৌঁছল এসে ঠিক দুপুরে,

যেইখানে আছে পীর।

দেখল সেথা খানকা ঘিরে,

প্রচুর লোকের ভীড়।

পীরের হাতে সোনার আংটি,

গলায় টাকার মালা।

চেয়ারখানা শৌখিন বটে,

মেলা টাকার ঠেলা।

ভাবলো বসে পিয়াস মিয়া,

মুখে দিয়ে তার হাত।

পীরে তাকে বাচ্চা দিবে,

রক্ষা হবে জাত।

খানিক বাদে ডাক এসেছে,

পিয়াস মিয়া’ বলে।

সুড়সুড়িয়ে পীরের কাছে,

পিয়াস এল চলে।

বলল পীরেঃ- ‘কি চাই বাছা…??

আর্জি কি তোর বল।

ধনসম্পদ লাগবে নাকি?

ক্ষমতা রদবদল ??

পিয়াস মিয়া বলল উঠে;

খানিক গলা তুলে।’

বিয়ে হল আজ সাতটি বছর,

বাচ্ছা পায়নি কোলে।

যে করেই হোক একটি বাচ্ছা,

করুন আমায় দান।

রক্ষে হবে জাতটা আমার,

শান্ত হবে প্রাণ।

একটু হেসে বলল পীরে,

এই বুঝি তোর দাবী?

থাকতে আমি চিন্তা কিসের?

বাচ্ছা পেয়ে যাবি।

বেজায় খুশী পিয়াস মিয়া,

বলল হেসে তবে।

বলুন বাবা এখন আমায়,

কি কি করতে হবে ??

পীর শুধাল,‘এই নে তাবিজ,

বউয়ের গলায় দিবি।

অমুক তারিখ ওরশ আছে,

ছাগল নিয়ে যাবি।

আনবি সাথে হাদিয়ার টাকা,

ফলফালাদি আর।

আরও আনিস বউটাকে তোর,

করে দেব ফুঁক-ঝাড়।

ছাগল দিলাম, হাদিয়া দিলাম,

তাবীজ নিলাম ঢের।

বউয়ের পেটে বাচ্চা এল কিনা,

আজও পেলনা টের।

বছর তি’নেক চলেই গেল,

বাচ্চার নেই দেখা।

ক্লান্ত পিয়াস বুঝল এবার,

সবই ছিল ধোঁকা।

হায়রে মুমিন বুঝবি কবে?

পীরের বুদ্ধির চিকন ধার।

পীরের পূজা আর দরগাহ পূজা,

আজ মিলেমিশে একাকার।

লেখন কালঃ ২১-০৩-২০২২ কবি পরিচিতিঃ- মু. রাসেল উদ্দিন ( পিয়াস ), বৃহত্তর লক্ষ্মীপুর জেলার, রামগতী অঞ্চলের, ০২ নং চরবাদাম ইউনিয়ন এর পূর্ব চরসীতা গ্রামে, ১৯৯৬ খ্রিষ্টাব্দের ১৯ এ ডিসেম্বর জম্ম গ্রহন করেন। তার পিতার নামঃ- মরহুম শাফি উল্যাহ্ এবং মাতার নামঃ- মরহুমা -চাঁন ভানু । গুরুত্বপূর্ণ তথ্যঃ- স্কুল জীবন থেকেই তার গল্প ও কবিতার প্রতি ছিলো অগাধ ভালোবাসা। ২০১৩ খ্রিষ্টাব্দে, চরসীতা তোরাব আলী উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এস,এস,সি এবং ২০১৫ খ্রিষ্টাব্দে, আ. স. ম আব্দুরব সরকারী কলেজের বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এইচ,এস,সি পাস করেন । বর্তমানে তিনি লক্ষ্মীপুর সরকারী কলেজে, স্নাতক সম্মান ৪র্থ বর্ষে, রসায়ন বিভাগে অধ্যায়নরত আছেন। তিনি, বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনে কাজ করেন, তার মধ্যে, হিল্লোল ছাত্র উন্নায়ন ক্লাব, স্বপ্ন মিছিল, রামগতি স্বেচ্ছায় রক্তদানকারী পরিবার, CHARSITA YOUTH HANDS (CYH), বিজয় একাত্তর সাহিত্য সংসদ, বই পড়া আন্দোলন, সাফল্যকৃষি, লক্ষ্মীপুর পাঠক-পাঠিকার আসর, আদর্শ মাণবকল্যান সংগঠন, আন্তজাতিক মানবাধিকার সাংবাদিক সংস্থা, মোহাম্মদ উল্যাহ্ ট্রাস্ট,মুক্তি বিতর্ক ধারা, বিজয় একাত্তর সাহিত্য সংসদ, বেতিক্রম ডিবেটিং ক্লাব, উল্লেখযোগ্য। একাধারে গল্প, কবিতা, নাটক লিখেছেন এবং চিত্রনাট্য রচিতা ও গীতিকার হিসাবেও তিনি পরিচিত । ব্যাক্তিগত অনুভূতি, অভিজ্ঞতা, যুক্তি বিচারের অালোকে এক সুগভীর জীবনঘনিষ্ঠ আশাবাদী চেতনা তার কবিপ্রতিভার মূল সুর। সাহিত্যকর্মঃ- কবি মু. রাসেল উদ্দিন পিয়াসের উল্লেখযোগ্য কবিতা গুলো হল – “বৃষ্টি, ‘এখন রাত, ‘পরগাছা, ‘ রাকু, দূর্বাঘাস, ‘ইঞ্চি প্লান্ট, ‘ছোট্ট ইতু, এবং গল্পের মধ্যে রয়েছে ব্যাচেলর ও নাটকের মধ্যে রয়েছে উষ্ণতা, অনুতাপ, প্রভৃতি। এচাড়া উপন্যাস ও শিশুসাহিত্যেও তার বিশেষ আগ্রহ আছে।

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরো খবর
©বিডিকালচার২৪ ডট কম |  ২০২০-২০২২
প্রযুক্তি সহায়তায় RaFi