1. bdculture2020@gmail.com : bdculture :
ভিলেজ টাওয়ার - BD CULTURE
শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১১:৪৫ অপরাহ্ন

ভিলেজ টাওয়ার

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেটের সময় : সোমবার, ৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১
ভিলেজ টাওয়ার
গ্রাম হবে শহর এই নীতিকে অবলম্বন করে ভিলেজ টাওয়ার তৈরি করতে হবে।
কথায় কথায় বাপ দাদার ভিটা ভাগ করা চলবে না ।
ঠুকনো কোন বিষয় নিয়ে বাড়ি ভাগ করে নতুন বাড়ি করতে গিয়ে কৃষি জমি নষ্ট করা চলবে না। যারা একান্তই পরিবারের সাথে মিলে থাকতে না পারেন তারা উঠবে ভিলেজ টাওয়ারে। সরকার সহযোগিতা করবে। একটি বাড়ি থেকে একটি কৃষিজমিই অনেক বেশি মূল্যবান। ভবিষ্যতে খাদ্য সংকট দেখা দিতে পারে। বাংলাদেশ ছোট্ট একটি দেশ‌। পৃথিবীর মধ্যে এখানে জনসংখ্যা সবথেকে বেশি জায়গার অনুপাতে। কৃষি জমি নষ্ট করলে ভবিষ্যতে আমাদের খাদ্য সংকট দেখা দিতে পারে। আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য একটি টেকসই কৃষি পরিকল্পনা এবং একটি সঠিক গ্রাম্য বাসস্থান পরিকল্পনা নিতে হবে। যাতে করে গ্রামের  কৃষিজমি গুলো ধীরে ধীরে নষ্ট না হয়ে যায়।
মানুষ স্বাভাবিকভাবেই কোলহপূর্ণ। তাদের এই কোলহ থেকে বিরত রাখতে হবে। একটি কথা মনে রাখতে হবে মানুষের পিছনে সব সময় শয়তান লেগে থাকে। ধর্মীয় শিক্ষা ও বিধি-বিধান। এবং কিছু সরকারিভাবে টেকনিক অবলম্বন করতে হবে। তাদেরকে বুঝাতে হবে। জমি টুকরো টুকরো হয়ে গেলে আমাদের ভবিষ্যতের সমস্যায় পড়তে হবে। সেক্ষেত্রে গ্রামে গ্রামে কাউন্সিলিং করা যেতে পারে‌।
শহরে বস্তিবাসীর জন্য যেভাবে উচ্চ ভবন তৈরি করা হয়েছে ভাষানটেকে। ঠিক সেভাবে প্রতিটি গ্রামে সরকারের পরিকল্পনা নিয়ে ভিলেজ টাওয়ার তৈরি করতে হবে। যারা পরিবারের সাথে একান্তই মিশে থাকতে পারবেই না, তারা সেই ভিলেজে টাওয়ারে গিয়ে ফ্ল্যাটে থাকবে। তারা চাইলেই যেন তাদের কৃষি জমিতে বাড়ি ঘর করতে না পারে।
প্রকৃতপক্ষে সকল জমি কিন্তু সরকারি। জমি শুধুমাত্র হাতবদল হয় রেজিস্ট্রেশন এর মাধ্যমে। তাই যত্রতত্র বাড়িঘর না করে, পরিকল্পনামাফিক বাড়িঘর তৈরি করলে আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য ভালো হবে। একটি সুন্দর দেশ গড়ে উঠবে।
আমার মনে হয়েছে এটি একটি অতীব গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। একটি রাষ্ট্রের জন্য। ১০০ বছরের পরিকল্পনা হাতে নিয়ে আমাদের এগোতে হবে। আমরা হয়তো মরে যাব কিন্তু আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্ম যেন ভালোভাবে বাস করতে পারে, সে চিন্তাটা আমাদের এখন থেকেই করতে হবে।
একটি বিষয় আমরা দেখতে পাচ্ছি, কোন একক ব্যক্তির হাজার হাজার কোটি টাকার মালিক। একজন লোক বেঁচে থাকতে তার এত টাকা কখনো প্রয়োজন পড়ে না। সরকারি আইন করে ব্যক্তির টাকা দিয়ে রাষ্ট্রের উন্নয়ন, মানুষের উন্নয়ন এবং রাষ্ট্রের সুবিধার জন্য অর্থ বিভাজন করা যেতে পারে।
কাজী তৈমুর
৩/০৯/২০২১ শুক্রবার
হাতিরঝিল, ঢাকা।

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর

Categories

© All rights reserved © 2019 bdculture
                          কারিগরি সহায়তায় রাফিউল ইসলাম